December 9, 2019

অপো নতুন মোবাইল কারখানা তৈরী করল বংলাদেশে,মোবাইলের দাম অনেক কমবে

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

বাংলাদেশে তৈরি স্মার্টফোন বাজারে নিয়ে আসছে গ্লোবাল স্মার্টফোন ব্র্যান্ড অপো। এর ফলে দেশের বাজারে গ্রাহকরা আরও সাশ্রয়ী মূল্যে হাতে পাবেন অপো স্মার্টফোন। গাজীপুরে স্থাপিত অপোর মোবাইল সংযোজন কারখানায় প্রতি বছর তৈরি হবে ১০ লাখ স্মার্টফোন।

বাংলাদেশে স্থাপিত অপোর এই স্মার্টফোন কারখানায় বেশ কিছু মডেলের স্মার্টফোন তৈরি করা হবে। এর ফলে স্মার্টফোন নিয়ে নতুন সব উদ্ভাবন আরও সহজেই গ্রাহকদের কাছে পৌঁছে দেওয়া সম্ভব হবে। 
অপোর এ বিনিয়োগ বাংলাদেশের ভাবমূর্তি যেমন উজ্জ্বল করবে, তেমনি প্রযুক্তি খাতে কর্মসংস্থানেরও সুযোগ তৈরি করবে। বাংলাদেশে স্থাপিত এই কারখানাটি হতে যাচ্ছে বিশ্বে অপোর দশম স্মার্টফোন কারখানা।বেনলি ইলেকট্রনিক এন্টারপ্রাইজ কোম্পানি লিমিটেড নামে স্থাপিত এই স্মার্টফোন কারখানায় দুই শতাধিক মানুষের কর্মসংস্থানের সুযোগ তৈরি হচ্ছে। অপোর গ্লোবাল স্ট্যান্ডার্ড অনুসরণ করেই এটি স্থাপন করা হয়েছে। 

দেশের বাজারের চাহিদা মিটিয়ে বিদেশের বাজারেও বাংলাদেশে তৈরি স্মার্টফোন রপ্তানির পরিকল্পনা রয়েছে অপোর। প্রাথমিকভাবে এ কারখানায় অপো এ৫এস এবং এ১কে তৈরি করা হবে। 

বর্তমানে বাংলাদেশে ১৬ কোটি ২৩ লাখ মোবাইল ফোন ব্যবহারকারী এবং ৯ কোটি ২৩ লাখ ৬১ হাজার মোবাইল ইন্টারনেট ব্যবহারকারী রয়েছেন। দেশের বাজারে প্রতি মাসে ১০ লাখ নতুন হ্যান্ডসেন্টের চাহিদা রয়েছে। ক্রমবর্ধমান এ চাহিদার কথা মাথায় রেখেই দেশের বাজারে স্মার্টফোন কারখানা স্থাপনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে অপো। 

২০১৪ সাল থেকে বাংলাদেশে কার্যক্রম পরিচালনা করছে অপো। দেশের গ্রাহকদের হাতে মানসম্পন্ন স্মার্টফোন তুলে দিতে সবসময় প্রতিশ্রুতিবদ্ধ প্রতিষ্ঠানটি। স্থানীয় বাজারে পাঁচ বছর কাজ করার পর এবার তাই আরও সাশ্রয়ী দামে মানসম্পন্ন স্মার্টফোন গ্রাহকদের হাতে তুলে দিতে এই স্মার্টফোন সংযোজন কারখানা নির্মাণ করা হচ্ছে। 

এ বছর অপো দেশের বাজারে এনেছে ‘এ’ সিরিজের দুটি স্মার্টফোন অপো এ৯ ২০২০ এবং এ৫ ২০২০ যা গ্রাহকদের মাঝে ব্যাপক সাড়া ফেলেছে। দেশের বাজারে স্থাপিত এ কারখানার মাধ্যমে এখন থেকে গ্রাহকদের হাতে আরও দ্রুত সময়ের মধ্যে অপো স্মার্টফোন পৌঁছে দেওয়া সম্ভব হবে। 


  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *